1. sylhetmohanagarbarta@gmail.com : সিলেট মহানগর বার্তা :
বুধবার, ২৯ নভেম্বর ২০২৩, ১০:১২ অপরাহ্ন
ঘোষণা:
জরুরী নিয়োগ চলছে দেশের প্রতিটি বিভাগীয় প্রতিনিধি, জেলা,উপজেলা, স্টাফ রিপোর্টার, বিশেষ প্রতিনিধি, ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি, ক্যাম্পাস ও বিজ্ঞাপন প্রতিনিধি বা সাংবাদিক নিয়োগ চলছে।
প্রধান খবর:
সাংবাদিক গোলজারের মায়ের ইন্তেকাল, দাফন সম্পন্ন,আত্মার মাগফেরাত কামনায় দোয়া কবি মুহিত চৌধুরীর জন্মদিন আজ ওসমানী হাসপাতালের কর্মচারীরা ওয়ার্ড মাষ্টার রওশন হাবিব ও ৪র্থ শ্রেনীর কর্মচারী আব্দুল জব্বারের হাতে জিম্মি সাংবাদিক তাওহীদকে প্রাণনাশের হুমকিতে অনলাইন প্রেসক্লাবের উদ্বেগ সিলেটে সাংবাদিক তাওহীদুল ইসলামকে প্রাণনাশের হুমকি, থানায় জিডি লিডিং ইউনিভার্সিটি থেকে পেশাগত অসদাচরণের দায়ে স্থপতি রাজন দাস চাকুরিচ্যুত নবগঠিত ২৮, ২৯, ৩০,৪০, ৪১ ও ৪২ নং ওয়ার্ডের আওয়ামী লীগের আহবায়ক ও যুগ্ম আহবায়কের নাম ঘোষণা গোলাপগঞ্জ উপজেলার উন্নয়ন মেলার সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে গান গেয়ে মাতিয়েছেন হিল্লোল শর্মা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর শেখ হাসিনা’র ৭৭তম জন্মদিন উপলক্ষে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের কর্মসূচী যুক্তরাজ্য গমন উপলক্ষে রিমন ও আলমকে মহানগর ছাত্রলীগের সংবর্ধনা

কানাইঘাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দুর্নীতির বরপুত্র অফিস সহকারী শামীম

  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ১০ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১৪৭ বার পড়া হয়েছে

সিলেট জেলা প্রতিনিধি

সিলেটের কানাইঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কিছু অসাধু কর্মকর্তারা রেকর্ড সংখ্যক র্দুনীতিতে পা রেখেছেন। হাসপাতালের নানা কাজের র্দুনীতি আড়াল হলেও এবার প্রকাশ্যে বেরিয়ে এসেছে থলের বিড়াল। ভুয়া খাবারের পৃথক দুটি মেমো তৈরী করে ৭ জনের খাবারের বিল দেখানো হয়েছে ১ লক্ষ ৫৭ হাজার ৫ শত টাকা। আর বিল দেখানো হয়েছে কানাইঘাট মধ্য বাজারের নাঈম এন্ড ফাহিম রেষ্টুরেন্টের মেমো কাগজে। এমনকি ম্যানেজার হিসাবে নাঈম নামে একটি স্বাক্ষরও দেখানো হয়েছে। এভাবে জালজালিয়াতির আশ্রয় নিয়ে ভুয়া মেমো তৈরী করে সরকারের কোষাগার থেকে খাবার বাবত বিল উত্তোলন সহ নানা অনিয়ম-দূর্নীতির সত্যতা পাওয়া যাচ্ছে। তবে খাবার ভুয়া মেমো তৈরী করে বিল উত্তোলনের ভাউচারে হাসপাতালের টিএইচও ডাঃ শেখ শরফ উদ্দিন নাহিদ ও অফিস সহকারী শামীম আহমদের স্বাক্ষর রয়েছে। এদিকে ভুয়া বিলে রেষ্টুরেন্টের নাম ব্যবহার, সীল ও ম্যানেজারের স্বাক্ষর জালিয়াতির দায়ে নিউ পানশী রেস্টুরেন্ট ও নাঈম এন্ড ফাহিম রেষ্টুরেন্টের স্বত্বাধিকারী মোঃ আব্দুল মান্নান বাদী হয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে অভিযোগ দায়ের করেছেন। আজ বুধবার তিনি এ অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগে তিনি উল্লেখ করেছেন বিল ভাউচারে যে তারিখ গুলো দেখানো হয়েছে সেই করোনাকালীণ সময়ে সরকারের নির্দেশ মতে তার রেষ্টুরেন্ট বন্ধ ছিল। এমনকি ভাউচারে নিচে নাঈম নামে ম্যানেজারের যে স্বাক্ষর দেখানো হয়েছে সেই স্বাক্ষরটি জালিয়াতি করা হয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের এমন জালিয়াতির ঘটনায় তিনি একজন ব্যবসায়ী হিসাবে তার সুনাম ক্ষুন্ন হয়েছে। এরজন্য তিনি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট এর সঠিক বিচার দাবি করেছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

পুরাতন সংবাদ পড়ুন

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: এন আর